মুখের দুর্গন্ধ স্থায়ীভাবে দূর করার ঘরোয়া উপায়

মুখের দুর্গন্ধ সহজেই দূর করার উপায় — ডা. তাসনিম জারা (চিকিৎসক, ইংল্যান্ড), মুখের দুর্গন্ধ স্থায়ীভাবে দূর করার ঘরোয়া উপায়

আচ্ছালামু আলাইকুম প্রিয় দর্শক - দেশি ব্লগর পক্ষ থেকে আপনাকে স্বাগতম। আজকে আমি আপনাদের মাঝে মুখের দুর্গন্ধ স্থায়ীভাবে দূর করার ঘরোয়া উপায় নিয়ে আলোচনা করব।

মুখের দুর্গন্ধ স্থায়ীভাবে দূর করার ঘরোয়া উপায় সম্পর্কে আরো জানতে গুগলে সার্চ করতে পারেন অথবা আমাদের ওয়েব সাইটে অন্যান্য পোস্টগুলো পড়তে পারেন। তো চলুন আমাদের আজকের মূল বিষয়বস্তুগুলো এক নজরে পেজ সূচিপত্রতে দেখে নেয়া যাকঃ

মুখের দুর্গন্ধ স্থায়ীভাবে দূর করতে চান? মুখের দুর্গন্ধের জন্য অনেকেই নানান সমস্যায় ভুগছেন। মুখ দিয়ে দুর্গন্ধ বের হওয়ার কারণে কারো সাথে কথাও বলা যায় না। মুখ দিয়ে দুর্গন্ধ বের হওয়ার কারণে অনেক লজ্জার সম্মুখীন হওয়া লাগে।

মুখের দুর্গন্ধ স্থায়ীভাবে দূর করার ঘরোয়া উপায়

মুখের দুর্গন্ধ স্থায়ীভাবে দূর করার আগে জানতে হবে কি কি কারণে আসলে মুখে দুর্গন্ধ সৃষ্টি হয়। মুখে দুর্গন্ধ হওয়ার আনেক কারণ রয়েছে। তার মধ্যে কয়েকটি কারণ বেশি দেখা যায় মুখের দুর্গন্ধের জন্য। যেমনঃ

মুখ শুকনো থাকা

মুখ শুকনো থাকার কারণে আমাদের মুখে দুর্গন্ধ দেখা দেয়। মুখ শুকনো থাকে মুখে লালা না থাকলে। মুখের লালা আমাদের অনেক কাজেই উপকার করে থাকে। মুখের জীবাণু ধ্বংস করতে, দুর্গন্ধ দূর করতে আরো অনেক কাজেই এই লালা আমাদের সাহায্য করে। তাই মুখে পর্যাপ্ত পরিমাণে লালা না থাকলে মুখে দুর্গন্ধ দেখা দেয়। মুখ শুকনো দূর করতে বেশি পরিমাণে পানি খেতে পারেন। 

মাড়ির প্রদাহ

মুখে দুর্গন্ধের মাড়ির প্রদাহ একটি কমন কারণ। আমরা যখন খাবার খাই তখন আমাদের দাঁতের উপর একটি আস্তর তৈরি হয়। এই আস্তর ২৪ ঘন্টার মধ্যে পরিষ্কার না করলে এটি শক্ত হয়ে যায়। তখন এটি ব্রাশ দিয়ে পরিষ্কার হয় না। এভাবে আস্তর জমতে জমতে অনেক শক্ত স্তরে পরিণত হয় যার কারণে মাড়ির প্রদাহ হয়। এই স্তরে অনেক জীবাণু থাকে যা থেকে মুখে দুর্গন্ধ সৃষ্টি হয়। মাড়ির প্রদাহ থেকে বাঁচতে রাতে খাবার পর আর সকালে খাবার পর ব্রাশ করতে পারেন।

চিনি যুক্ত খাবার ও পানীয়

চিনি যুক্ত বা পানীয় খাবার খাওয়া থেকে দূরে থাকার চেষ্টা করবেন। চিনি যুক্ত খাবার খেলে এর ছোট ছোট কণা দাঁতে লেগে। আমাদের মুখে থাকা ব্যাকটেরিয়া এই কণা গুলো হজম করতে সাহায্য করে। বারবার এমন হতে থাকতে দাঁতে ছোট ছোট গর্ত তৈরি হয় যার কারণে দুর্গন্ধ সৃষ্টিকারী জীবাণু সেই গর্তে বাসা বাদে। এই জীবাণু গুলো তখন ব্রাশ দিয়েও দূর করা যায় না। যার জন্য মুখে দুর্গন্ধ সৃষ্টি হয়।

সিগারেট বা তামাক সেবন করা

মুখে দুর্গন্ধের বড় একটা কারণ হলো সিগারেট বা তামাক সেবন করা। সিগারেট আমাদের মুখে দুর্গন্ধ সৃষ্টির পাশাপাশি শরীরের আরও অনেক ক্ষতি করে থাকে। তামাক শুধু সিগারেটে আছে এমনটা না বিভিন্ন ধরনের জর্দাতেও তামাক রয়েছে। তাই যারা সিগারেট বা তামাক সেবন করেন তারা এইসব অভ্যাস বাদ দেওয়ার চেষ্টা করবেন।

এখন জানা যাক মুখের দুর্গন্ধ স্থায়ীভাবে দূর করার জন্য আমরা কি করতে পারি। অনেক উপায় রয়েছে মুখের দুর্গন্ধ দূর করার তার মধ্যে কয়েকটি সহজ ঘরোয়া উপায় আছে। যার মাধ্যমে খুব দ্রুত ও সহজে মুখের দুর্গন্ধ দূর করতে পারবেন। যেমনঃ

শাক সবজি ও ফলমূল খাওয়া

মুখের দুর্গন্ধ দূর করার জন্য বেশি বেশি শাক সবজি ও ফলমূল খাওয়া চেষ্টা করবেন। শাক সবজি ও ফলমূলে অনেক ভিটামিন রয়েছে। বিভিন্ন ধরনের ও বিভিন্ন রকমের ফলমূল খাওয়ার চেষ্টা করবেন। মৌসুমি শাক সবজি ও ফলমূল খাবেন এতে মুখের দুর্গন্ধ দূর করার পাশাপাশি শরীরের জন্যও অনেক উপকারী।

বেশি বেশি পানি পান করা

মুখের দুর্গন্ধ দূর করতে অবশ্যই আপনাকে বেশি বেশি পানি পান করতে হবে। মুখ শুকনো থাকলে মুখে দুর্গন্ধ দেখা দেয়। তাই বেশি বেশি পানি পান করবেন। পানি আমাদের মুখে লালা তৈরি করতে সাহায্য করে। লালা আমাদের মুখের দুর্গন্ধ দূর করতে কাজ করে। এছাড়াও পানি আমাদের শরীরকে ড্রাই হওয়া থেকে বাঁচায়।

মুখ ভালোভাবে পরিষ্কার করা

মুখ ভালোভাবে পরিষ্কার না করলে মুখে দুর্গন্ধ সৃষ্টি হবে। মুখ ভালোভাবে পরিষ্কার রাখতে দিনে ২ বার ব্রাশ করতে হবে। ব্রাশ করার সময় তারাহুরো করবেন না ২ মিনিট ভালোভাবে ব্রাশ করলেই যথেষ্ট। অনেক সময় দুই দাঁতের মাঝখানে খাবার আটকে থাকে যা ব্রাশ দিয়ে পরিষ্কার হয় না এ ক্ষেত্রে আপনি ডেন্টাল ফ্লস ব্যবহার করতে পারেন।

ফ্লোরাইড যুক্ত টুথপেস্ট ব্যবহার

দাঁত মাজার সময় ফ্লোরাইড আছে এমন টুথপেস্ট ব্যবহার করবেন। ফ্লোরাইড আমাদের দাঁতকে ক্ষয় হওয়া থেকে বাঁচায়। এখনকার বেশির ভাগ টুথপেস্টেই ফ্লোরাইড আছে। তা-ও টুথপেস্ট ক্রয় ও ব্যবহারের সময় চেক দিয়ে নিবেন।

এছাড়াও মুখের ভেতরের বিভিন্ন রোগের কারণে মুখে দুর্গন্ধ দেখা দেয়। যেমন, দাঁত ক্ষয়, মাড়ি পঁচা ইত্যাদি। এইসব রোগের চিকিৎসাও আলাদা হয়ে থাকে। তাই মুখের ভেতরে কোনো রোগ হলে অবশ্যই ভালো ডেন্টিস্টের কাছে গিয়ে ট্রিটমেন্ট করাবেন। এই কাজ গুলো করার মাধ্যমে আপনার মুখের দুর্গন্ধ খুব দ্রুত স্থায়ীভাবে দূর হয়ে যাবে।


আপনার আসলেই দেশি ব্লগর একজন মূল্যবান পাঠক। মুখের দুর্গন্ধ স্থায়ীভাবে দূর করার ঘরোয়া উপায় এর আর্টিকেলটি সম্পন্ন পড়ার জন্য আপনাকে অসংখ ধন্যবাদ। এই আর্টিকেলটি পড়ে আপনার কেমন লেগেছে তা অবশ্যই আমাদের কমেন্ট বক্সে কমেন্ট করে জানাতে ভুলবেন না।

এই পোস্টটি পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন

কোন মন্তব্য নেই
এই পোস্ট সম্পর্কে আপনার মন্তব্য জানান

দয়া করে নীতিমালা মেনে মন্তব্য করুন - অন্যথায় আপনার মন্তব্য গ্রহণ করা হবে না।

comment url