তৈলাক্ত ত্বকের ব্রণ দ্রুত দূর করার ঘরোয়া উপায়

মুখের ব্রণ দূর করুন একজন বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের সাথে ।। Solve Acne problem., তৈলাক্ত ত্বকের ব্রণ দ্রুত দূর করার ঘরোয়া উপায়

আচ্ছালামু আলাইকুম প্রিয় দর্শক - দেশি ব্লগর পক্ষ থেকে আপনাকে স্বাগতম। আজকে আমি আপনাদের মাঝে তৈলাক্ত ত্বকের ব্রণ দ্রুত দূর করার ঘরোয়া উপায় নিয়ে আলোচনা করব।

তৈলাক্ত ত্বকের ব্রণ দ্রুত দূর করার ঘরোয়া উপায় সম্পর্কে আরো জানতে গুগলে সার্চ করতে পারেন অথবা আমাদের ওয়েব সাইটে অন্যান্য পোস্টগুলো পড়তে পারেন। তো চলুন আমাদের আজকের মূল বিষয়বস্তুগুলো এক নজরে পেজ সূচিপত্রতে দেখে নেয়া যাকঃ

তৈলাক্ত ত্বকের ব্রণ দ্রুত দূর করতে কি করণীয়? আমাদের মাথায় একটাই প্রশ্ন ঘুরপাক, কিভাবে খুব দ্রুত তৈলাক্ত ত্বকের ব্রণ দূর করা যায়? ব্রণ নিয়ে অনেকেই নানান দুশ্চিন্তায় ভুগেন। ব্রণ নিয়ে দুশ্চিন্তা কারার মতো কিছু নেই এটি সম্পুর্ন নিরাময় একটি রোগ। ব্রণ দূর কারার আগে অবশ্যই জানতে হবে, ব্রণ আসলে কিভাবে হয়?

তৈলাক্ত ত্বকের ব্রণ দ্রুত দূর করার ঘরোয়া উপায়

ব্রণ হওয়ার কারণ হচ্ছে, আমাদের ত্বকের সবথকে ওপরের ভাগে sebaceous gland বা মেদবহুল গ্রন্থি থাকে। এই sebaceous gland থেকে এক প্রকার তেল বের হয় যা আমাদের ত্বককে মসৃণ রাখে। বাহিরের ধুলোবালি এসে যখন ত্বকে লাগে তখন এই পূরের মুখ বন্ধ করে দেয় ফলে sebaceous gland থেকে বের হওয়া তেল ভিতরেই আটকা পড়ে যায়।

এই তেল বের হতে না পেরে আস্তে আস্তে ভিতরে জমতে থাকে এবং তেল জমতে থাকায় স্কিনে থাকা ব্যাকটেরিয়া যারা স্কিনের তেল খেয়ে বেচে থাকে তারা এসে এই sebaceous gland এ বাসা বানায়। যখন এই পূরে ব্যাকটেরিয়া বেশি হয়ে যায় তখন লোহিত রক্ত কণিকা সেই জায়গা অবশ করে দেয় আর স্রেত রক্তকণিকা যখন এই ব্যাকটেরিয়া গুলোকে মারতে থাকে তখন সেখানে ব্যথা অনুভব হয় এবং এই ভাবেই ব্রণ সৃষ্টি হয়। ব্রণ অনেক প্রকারের হয়ে থাকে। যেমনঃ

Nodulocystic acne

acne excoriee

blackhead acne

whitehead acne 

ব্রণ কিভাবে হয় সেটা জানার পর প্রথমেই প্রশ্ন আস, কেন ব্রণ হয়? ব্রণ হওয়ার বেশ কয়েকটি কারণ আছে তার মধ্যে কয়েকটি হলোঃ

জাঙ্ক ফুড

ব্রণ হওয়ার কারণের মধ্যে একটি হলো জাঙ্ক ফুড খাওয়া। জাঙ্ক ফুড খাওয়ার কারণে ব্রণ সৃষ্টি হয়ে থাকে। জাঙ্ক ফুড বলতে ভাজাপোড়া, তৈলাক্ত ইত্যাদি খাবারকে বোঝায়। এছাড়াও জাঙ্ক ফুড আমাদের ত্বকের সাথে সাথে শরীরেও অনেক ক্ষতি করে। অতিরিক্ত জাঙ্ক ফুড খাওয়া শরীরে বিভিন্ন রোগ বালাই এর কারণ হয়ে থাকে। 

বেভারেজ ও চিনি যুক্ত খাবার

অতিরিক্ত মাত্রায় বেভারেজ ও চিনি যুক্ত খাবার খাওয়া ব্রণ হওয়ার সাধারণ একটি বিষয়। এই বেভারেজ ও চিনি যুক্ত খাবার অতিরিক্ত খাওয়ার কারণে ত্বকের তৈলাক্ত ভাব বেড়ে যায় তাই sebaceous gland এ ব্যাকটেরিয়া আক্রমণ করে যার কারণে ব্রণ সৃষ্টি হয়। এছাড়াও এ জাতীয় খাবার বিভিন্ন রোগ বালাই হওয়ার যুকি বাড়িয়ে দেয়। 

কম ঘুমানো 

আমরা সবাই জানি কম ঘুমানো কারণে বিভিন্ন রোগের সাথে সাথে ব্রণ হওয়ারও একটা বড় কারণ। কম ঘুমানো কারণে স্কিন ড্যামেজ হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। এছাড়া কম ঘুমালে ত্বকে ব্রণ হওয়ার পাশাপাশি আরও বিভিন্ন সমস্যা দেখা দিতে পারে। পর্যাপ্ত পরিমাণে না ঘুমালে ব্রণ ছাড়াও আরো বিভিন্ন সমস্যা ভুগতে হয়।

স্ট্রেসে থাকা বা (চাপে থাকা)

আমাদের মধ্যে অনেকেই আছে যারা বিভিন্ন কারণে নানান বিষয়ে ভেবে অনেক স্ট্রেসে থাকে বা চাপে থাকে। এই স্ট্রেস বা চাপে থাকার কারণেও ব্রণ হয়ে থাকে। স্ট্রেস অনেক কারণে হয়ে থাকে কেউ অফিসের কাজের জন্য কেউ বা পড়াশোনার জন্য আবার কেউ রিলেশন ব্রেকআপের কারণে স্ট্রেসে থাকে। বিভিন্ন কারণে মানুষ স্ট্রেসে থাকে যা ব্রণ সৃষ্টি করে থাকে।

কমেডোজেনিক কসমেটিক ব্যবহার

আমাদের মধ্যে যারা কসমেটিক ব্যবহার করেন তাদের অবশ্যই সচেতন থাকতে হবে। কমেডোজেনিক কসমেটিক আমাদের স্কিনে ব্রণ সৃষ্টি করে। ভলো ব্রান্ডের প্রডাক্টে লেখা থাকে কসমেটিকটি নন-কমেডোজেনি নাকি কমেডোজেনিক এক্ষেত্রে কমেডোজেনিক হলো যেসব কসমেটিক ব্যবহারে ব্রণ হবে। তাই যারা কসমেটিক ব্যবহার করেন তারা ভালো করে দেখে শুনে ব্যবহার করবেন।

ব্রণ কিভাবে হয় আর কেন হয় সেটা জানার পর আমাদের এটি নিরাময় করার উপায় জানতে হবে। ব্রণ দ্রুত দূর করতে অনেক উপায় রয়েছে তার মধ্যে সহজ ও কার্যকারী কয়েকটি উপায় বেশি গুরুত্বপূর্ণ। যেমনঃ

পানি বেশি খাওয়া

পানি আমাদের শরীরের জন্য গুরুত্বপূর্ণ একটি বিষয়। শুধু ব্রণ না শরীরের অনেক সমস্যা দূর করতে পানি অনেকটা সহযোগিতা করে। ব্রণ দূর করতে প্রতিদিন বেশি পানি খাওয়ার সাথে সাথে স্কিন পরিষ্কার করতে পারেন। দিনে ৩-৪ বার পানি দিয়ে স্কিন পরিষ্কার করলেই যথেষ্ট। দ্রুত ব্রণ দূর করতে পানি অনেকটাই সহযোগিতা করে।

কাচা হলুদ ও নারিকেল তেল বা পিল খাওয়া (turmeric and coconut oil)

ব্রণ দ্রুত দূর করতে আপনি সকালে খালি পেটে কাজা হলুদ খেতে পারেন। এতে আপনার স্কিনের ব্রণ দূর করতে কাজে লাগবে। এছাড়া যারা কাচা হলুদ খেতে পারেন না তারা টারমারিক পিল(turmeric pill) পাওয়া যায় সেগুলো সকাল রাতে দিনে ২ বার খেতে পারেন। নারিকেল তেল বা কোকোনাট ওয়েল(coconut oil) খেতে পারেন বাজারে কোকোনাট পিল (coconut pill) পাওয়া যায় সেগুলো খেতে পারেন। এগুলো আপনাকে ব্রণ দূর করতে সাহায্য করবে।

শাক সবজি ও মাছ খাওয়া

আপনি আপনার স্কিনের ব্রণ ভালো করতে চাইলে অবশ্যই আপনাকে শাক সবজি খেতে হবে। আপনাকে জাঙ্ক ফুড খাওয়া কমিয়ে বেশি বেশি শাক সবজি খাওয়া অভ্যাস করতে হবে। এছাড়াও আপনি মাছ খেতে পারেন বিশেষ করে ওমেগা থ্রি ফ্যাট থাকে এমন ( কই,মলা,চাপিলা ইত্যাদি) মাছ ব্রণ ভালো করতে খুবই কার্যকারী।

এখানে শুধু ব্রণ কেন ও কিভাবে হয় এবং ব্রণ হওয়ার পরে সাধারণ যে সকল কাজ গুলো করা প্রয়োজন সেই সম্পর্কে বিস্তারিত বলা হয়েছে। এই সকল কাজের মাধ্যমে আপনি আপনার স্কিনের ব্রণ হওয়া বন্ধ ও দূর করতে পারবেন। তবে আপনার স্কিনে যদি অতিরিক্ত ব্রণ হয় তাহলে অবশ্যই একজন ব্রণ স্পেশালিস্টের থেকে পরামর্শ নিয়ে কাজ করা উচিত।

আপনার আসলেই দেশি ব্লগর একজন মূল্যবান পাঠক। তৈলাক্ত ত্বকের ব্রণ দ্রুত দূর করার ঘরোয়া উপায় এর আর্টিকেলটি সম্পন্ন পড়ার জন্য আপনাকে অসংখ ধন্যবাদ। এই আর্টিকেলটি পড়ে আপনার কেমন লেগেছে তা অবশ্যই আমাদের কমেন্ট বক্সে কমেন্ট করে জানাতে ভুলবেন না।

এই পোস্টটি পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন

কোন মন্তব্য নেই
এই পোস্ট সম্পর্কে আপনার মন্তব্য জানান

দয়া করে নীতিমালা মেনে মন্তব্য করুন - অন্যথায় আপনার মন্তব্য গ্রহণ করা হবে না।

comment url